Skip to content

প্রকাশ্যে ধূমপান: ক্ষমা চাইলেন মন্ত্রী

স্কুলশিশুদের এক অনুষ্ঠানে মঞ্চে বসে প্রকাশ্যে ধূমপানের পর তীব্র সমালোচনার মুখে ক্ষমা চাইলেন সমাজকল্যাণ মন্ত্রী সৈয়দ মহসীন আলী।

ভবিষ্যতে আর এমন ঘটনা ঘটবে না বলেও তিনি প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন।

মঙ্গলবার সকাল ১০টা ৩৫ মিনিটে নিজের ফেইসবুক পেইজে এক পোস্টে মহসীন লিখেছেন, “গতকাল এবং আজকে বিভিন্ন গনমাধ্যমে আসা আমার একটি ছবি নিয়ে আমি খুবই লজ্জিত। অস্বীকার করি না, আমি একজন চেইন স্মুকার কিন্তু এভাবে প্রকাশ্যে ধুম পান করা আমার কোন ভাবে ঠিক হয় নাই ।”

ফেইসবুকে ওই পোস্ট যে তারই দেয়া- বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে তা নিজেই নিশ্চিত করেছেন মন্ত্রী।

সোমবার সিলেট বর্ডার গার্ড পাবলিক স্কুল অ্যান্ড কলেজে জেএসসি ও প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষায় জিপিএ-৫ পাওয়া শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে বসে মহসীন আলী ওই কাণ্ড ঘটান।

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসহ জনসমাগমের স্থানে প্রকাশ্যে ধূমপান আইনত দণ্ডনীয় হলেও মঞ্চে বসে স্কুলশিশুদের সামনেই সিগারেট টানতে দেখা যায় তাকে।

অনুষ্ঠানে থাকা এক অভিভাবক বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, “বক্তারা নৈতিক শিক্ষায় শিক্ষিত হয়ে দেশের সেবায় নিয়োজিত হতে শিক্ষার্থীদের উপদেশ দিচ্ছেন। ঠিক সেই সময়ই শিক্ষার্থীদের সামনে মঞ্চে বসে সিগারেট ধরান মন্ত্রী!”

মৌলভীবাজারের সংসদ সদস্য মহসীন আলীর প্রকাশ্যে ধূমপানের ওই ছবি নিয়ে সোমবারই সামাজিক যোগাযোগের ওয়েবসাইটগুলোতে ব্যাপক সমালোচনা শুরু হয়।

মহসীন আলী তার ফেইসবুক পোস্টে লিখেছেন, “গতকাল অনেকটা আনকন্সাস মাইন্ডে ঘটে যাওয়া ঘটনার জন্য আমি আন্তরিক ভাবে ক্ষমা চাচ্ছি।”

এরকম ঘটনা আগামীতে আর হবে না- এমন প্রতিশ্রুতি দিয়ে মন্ত্রী বলেছেন, “আমি আশা করি আমার আত্ম-উপলদ্বিকে আপনারা বিবেচনায় এনে নিজ গুনে ক্ষমা করবেন।”

x