"খারাপ নির্বাচন ভালো, নাকি তৃতীয় শক্তির ক্ষমতা দখল?"

বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটনমন্ত্রী রাশেদ খান মেনন ৫ জানুয়ারির নির্বাচন নিয়ে বিতর্ক সম্পর্কে বলেছেন, ‘একটি খারাপ নির্বাচন ভালো, নাকি নির্বাচনের বাইরে গিয়ে একটি অসাংবিধানিক তৃতীয় পক্ষের শক্তির ক্ষমতা দখল করা ভালো—এ প্রশ্ন আমাদের সবার সামনে।’

আজ রোববার বিকেল পাঁচটার দিকে চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ড উপজেলায় রাষ্ট্রায়ত্ত পাটকল হাফিজ জুট মিল ওয়ার্কার্স ইউনিয়নের উদ্যোগে ওয়ার্কার্স ক্লাবে সংবর্ধনা সভায় তিনি এ কথা বলেন।

নির্বাচন সম্পর্কে সাংসদ মেনন বলেন, ‘আমি জানি, ৫ জানুয়ারির নির্বাচন নিয়ে বিতর্ক আছে। সাংবিধানিক ধারাবাহিকতা রক্ষা করা ছাড়া এখানে আসত সেনাশাসন, অসাংবিধানিক শক্তির শাসন। তার হাত থেকে দেশকে আমরা রক্ষা করেছি। এখন নির্বাচন নিয়ে প্রশ্ন তুলছেন?’

মন্ত্রী আরও বলেন, সীতাকুণ্ড অঞ্চল বাংলাদেশের মানুষের কাছে সহিংসতার অঞ্চল হিসেবে পরিচিতি পেয়েছে। দিনের পর দিন সীতাকুণ্ডে রাস্তা অবরোধ করে মানুষকে পুড়িয়ে মারা হয়েছে, বোমাবাজি করা হয়েছে ও হত্যাকাণ্ড ঘটেছে। সহিংসতা আর যার কাজে লাগুক, শ্রমিকদের কোনো কাজে লাগে না। অবরোধের কারণে কেউ যদি ক্ষতিগ্রস্ত হয়ে থাকে সে হচ্ছে শ্রমজীবী মানুষ এবং কৃষক।

হাফিজ জুট মিল ওয়ার্কার্স ইউনিয়নের সভাপতি নুর মোহাম্মদ মিলনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় প্রধান বক্তা ছিলেন জাতীয় শ্রমিক ফেডারেশন চট্টগ্রামের সাধারণ সম্পাদক দিদারুল আলম চৌধুরী। বিশেষ অতিথি ছিলেন জাতীয় শ্রমিক ফেডারেশনের আন্তর্জাতিক-বিষয়ক সম্পাদক কামরুল আহছান।
এতে বক্তব্য দেন আবু হানিফ, শামসুদ্দিন খালেদ প্রমুখ।

x