Skip to content

এখানেই জয় : ফখরুল

বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর আওয়ামী লীগের উদ্দেশে বলেছেন, ‘৫ জানুয়ারির একতরফা নির্বাচনের মাধ্যমে তাদের গণতন্ত্রের মানসকন্যার হাতে গণতন্ত্র নিহত হয়েছে। ওই নির্বাচনে দেশের মানুষ ভোট বর্জন করেছে। এখানেই জয়। এটা বিএনপির জয়, খালেদা জিয়ার জয়।’

জাতীয় প্রেস ক্লাবে বুধবার বিকেলে ‘বাংলাদেশী জাতীয়তাবাদ ও তারেক রহমান’ শীর্ষক গ্রন্থ প্রকাশনা উৎসবে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ সব কথা বলেন।

গ্রন্থটি লিখেছেন আখতার মাহমুদ এবং মোড়ক উন্মোচন করেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ভিসি অধ্যাপক এমাজউদ্দিন আহমদ।

ফখরুল বলেন, ‘অনেকেই বলেন, বিএনপি নাকি আন্দোলনে ব্যর্থ হয়েছে। তারাই ব্যর্থ হয়েছে। ৬০ বছরের একটি পুরনো দল যারা নিজেদের অধীনে একতরফা নির্বাচন করেছে। আর জনগণ সেই নির্বাচনে অংশ নেয়নি। জনগণ প্রমাণ করেছে হাসিনার অধীনে নিরপেক্ষ নির্বাচন সম্ভব নয়।’

নির্দলীয় ও নিরপেক্ষ সরকার ছাড়া সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব নয় বলেও জানান তিনি।

বিচারবর্হিভূত হত্যাকাণ্ড নিয়ে বিএনপি চেয়ারপারসনের উদ্ধৃতি দিয়ে একটি জাতীয় দৈনিকে শিরোনাম দেওয়া হয় ‘সরি খালেদা’। ওই পত্রিকার সমালোচনা করে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘তার কী অস্বীকার করতে চায় যে ৩০০ লোক বিচারবহির্ভূত হত্যাকাণ্ডের শিকার হয়নি? তারা কী ওইসব হত্যা সমর্থন করেন? হত্যার ওইসব ঘটনা কী মিথ্যা?’

তিনি বলেন, ‘বিচারবর্হিভূত ওইসব হত্যাকাণ্ডের ঘটনার তথ্য প্রকাশ করা হবে।’

মির্জা ফখরুল বলেন, ‘প্রতিদিনই খবরের কাগজ খুললে দেখা যায় লাশের ছবি। আমাদের ছেলেরা খুন হচ্ছে, গুম হচ্ছে। ইলিয়াস আলীকে গুম করা হয়েছে। এ কেমন রাষ্ট্রে আমরা বসবাস করি?’

‘যারা গুম করছে, সরকারকে এর জবাব দিতে হবে’ বলেও হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেন তিনি।

ঐক্যবদ্ধ হয়ে স্বাধীনতা ও গণতন্ত্র রক্ষার জন্য সবাইকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানিয়ে মির্জা ফখরুল বলেন, তারেক রহমান সুস্থ হয়ে দেশে ফিরবেন। তিনি মুক্তভাবে রাজনীতি করবেন।

তিনি বলেন, তারেক রহমানের তৃণমূলের রাজনীতির ওপর দাঁড়িয়ে আছে বিএনপি। চলমান আন্দোলনে গ্রাম বাংলার মানুষ অংশ নিয়েছে। তিনি দেশে ফিরে আন্দোলন চূড়ান্ত পর্যায়ে নিয়ে যেতে নেতৃত্ব দেবেন।

উপস্থিত নেতাকর্মীদের উদ্দেশে ফখরুল বলেন, ‘হতাশা শেষ কথা নয়, প্রতি রজনীর পরই নতুন সূর্য উদয় হয়।’

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার রফিকুল ইসলাম মিয়ার সভাপতিত্বে সংক্ষিপ্ত আলোচনায় বক্তব্য রাখেন- চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা এ জেড এম জাহিদ হোসেন, প্রেস ক্লাবের সভাপতি কামাল উদ্দিন সবুজ, সৈয়দ আবদাল আহমেদ, চলচ্চিত্র পরিচালক চাষী নজরুল ইসলাম প্রমুখ।

x