Skip to content

পুলিশ সুপারে রদবদল উদ্দেশ্যমূলক

নির্বাচনের আগের দিন (শনিবার) জেলা পুলিশ সুপারদের (এসপি) রদবদল করা সরকার ও নির্বাচন কমিশনের বিশেষ উদ্দেশ্য রয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপির দফতরের দায়িত্বে থাকা যুগ্ম-মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী আহমেদ।

শনিবার বেলা সোয়া তিনটার দিকে নয়াপল্টন বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ অভিযোগ করেন।

সরকার ও নির্বাচন কমিশনকে উদ্দেশ্য করে তিনি বলেছেন, আপনারা পুলিশ প্রশাসনে রদবদল করছেন কী উদ্দেশ্যে তা কারো জানতে বা বুঝতে বাকি নেই।

এই পুলিশ সুপারদের মধ্যে কেউ কেউ পুলিশ বাহিনীর উদ্দেশ্যে আস্ফালন করে বলেছেন- বিরোধী দলের আওয়াজ শুনি, কিন্তু পুলিশের গুলির আওয়াজ শুনি না কেন? সুতরাং নির্বাচনের আগের দিন জেলা পুলিশ সুপারদের রদবদল আপনারা বিশেষ উদ্দেশ্যে করেছেন।

তিনি বলেন, রোববার চতুর্থ দফা উপজেলা নির্বাচনকে কেন্দ্র করে আরো বেশি সহিংসতার আলামত দেখা যাচ্ছে।

রিজভী আরও বলেন, সহিংসতার উদ্দেশ্যে দলের ‘গ্রীণ সিগন্যাল’ পেয়ে নেতাকর্মীরা নির্বাচনী এলাকায় জড়ো হচ্ছেন। প্রার্থীরা প্রকাশ্যে শক্তির মহড়া দিচ্ছে।

তিনি বলেন, জেলা প্রশাসকের নিকট এ সম্পর্কে সহযোগিতা চাওয়া হয়েছে। তবে অনেক জেলা প্রশাসকও সরকারের আজ্ঞাবহ হিসেবে কাজ করে।

তিনি বলেন, সহিংসতা ও নির্বাচনী অচরণবিধি লঙ্ঘনের কোনো অভিযোগ সরকার ও এই নির্বাচন কমিশন আমলে নেয়নি। উল্টো কমিশন দাবি করছে নির্বাচন নাকি ‘অবাধ’ হচ্ছে।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন বিএনপির আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক নাজিমুদ্দিন আলম, সহ-দফতর সম্পাদক আবদুল লতিফ জনি, আসাদুল করিম শাহীন প্রমুখ।

x