Skip to content

প্রধানমন্ত্রী শিশুদের বন্ধু

শিশুদের প্রতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ভালোবাসা সবার জানা। শিশুদের তিনি প্রাণ দিয়ে ভালোবাসেন। তাই মাঝে মধ্যেই তিনি শিশুদের সঙ্গে সময় কাটান। ছুটে যান শিশুদের মাঝে।

স্বভাবসুলভ ভালোবাসা থেকেই শত ব্যস্ততাকে পিছনে ফেলে রোববার দুপুরেও অনাথ শিশুদের মুখে হাসি ফোটাতে তাদের মাঝে ছুটে গেলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

রাজধানীর শ্যামলীতে এসওএস শিশু পল্লীতে অনাথ শিশুদের সঙ্গে বেশ কিছুটা সময় কাটান তিনি।

প্রধানমন্ত্রী যখন শিশুদের কাছে যান, শিশুদের সঙ্গে মিশে কথা বলেন, তখন তিনি শিশুদের সবচেয়ে ঘনিষ্ট বন্ধু হয়ে যান। তিনি শিশুদের সঙ্গে খেলা করেন। শিশুদের শিশু সুলভ ব্যস্ততায় মাঝে নিজেকে ব্যস্ত করে ফেলেন। তাদের মুখে একটু হাসি ফোটাতে উজাড় করে দেন নিজের সবটুকু ভালোবাসা। তেমনটাই ঘটেছে রবিবার দুপুরেও।

এসময় প্রধানমন্ত্রী শিশুদের চকোলেট, মিষ্টি, ফুল ও বেলুন উপহার দেন। শিশুরা প্রধানমন্ত্রীকে কাছে পেয়ে আনন্দে উল্লসিত হয়ে ওঠে।

১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট ঘাতকদের হাতে বঙ্গবন্ধু সপরিবারে নিহত হন। ঘাতকরা রেহাই দেয়নি ছোট্ট শিশু শেখ রাসেলকেও।

ছোট্ট ভাইটিকে যেভাবে আদর করতেন, ভালোবাসতেন ঠিক সেভাবেই সব শিশুকেই কাছে টেনে নিতে চান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। শিশুদের কাছে গেলেই নিজের ভাইটির কথাই বার বার তার মনে পড়ে।

প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে রবিবার দুপুরে এসওএস শিশুপল্লীর অনাথ শিশুদের উন্নতমানের খাবারও পরিবেশন করা হয়।

এ সময় প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে ছিলেন তার উপদেষ্টা মেজর জেনারেল (অবঃ) তারিক আহমেদ সিদ্দিক, বিশেষ সহকারী মাহবুবুল হক শাকিল, বঙ্গবন্ধুর দৌহিত্র রেদোয়ান মুজিব সিদ্দিক ও তার স্ত্রী পেপি সিদ্দিক, মেয়ে লীলা ও ছেলে কাইয়াস মুজিব সিদ্দিক।

x