Skip to content

সুনামগঞ্জে এ প্লাস ক্যাম্পেইন নিয়ে অ্যাডভোকেসি সভা

৫এপ্রিল জাতীয় ভিটামিন “এ” প্লাস ক্যাম্পেইন-২০১৪ কে সামনে রেখে সুনামগঞ্জে সাংবাদিকদের নিয়ে মঙ্গলবার অ্যাডভোকেসি সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

জেলা স্বাস্থ্য বিভাগের উদ্যোগে বেলা ১১টায় সুনামগঞ্জ সদর উপজেলা স্বাস্থ্য প্রশিণ ভবনে এ অ্যাডভোকেসি সভা অনুষ্ঠিত হয়।

সুনামগঞ্জের ডেপুটি সিভিল সার্জন ডা. সুজিত চন্দ্র রায়ের সভাপতিত্বে এ প্লাস ক্যাম্পেইনের বিভন্ন তথ্য তুলে ধরে বক্তব্য রাখেন, জেলা স্বাস্থ্য তত্ত্বাবধায়ক মো. আব্দুল মালেক, সুনামগঞ্জ সদর উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. আব্দুল হাকিম, জেলা ইপিআই সুপারেন্টেড সজল কুমার তালুকদার।

এসময় সাংবাদিকদের জানানো হয় জেলার ১১টি উপজেলা এবং ৪টি পৌরসভায় ২ হাজার ০৩ শত ১৯ টি কেন্দ্র রয়েছে এর মধ্যে ১ হাজার ১ শত ৬০টি কেন্দ্র দুর্গম।

আরো জানানো হয় জেলায় মোট লোক সংখ্যা ২৪ লাখ ৬৪ হাজার ৮শত ৯৩ জন এর মধ্যে ৬ থেকে ১১ মাস বয়ষী শিশু হচ্ছে, ৪০ হাজার ২ শত ৬০ এবং ১২ থেকে ৩ লাখ ৫০ হাজার ৯ শত ৫ শিশু রয়েছে ।
৬ থেকে ১১ মাস বয়সী শিশুদের নীল রঙের ভিটামিন “এ” এবং ১২ থেকে ৩ লাখ ৪২ হাজার ৯ শত ৫ শিশুদের লাল রঙের ভিটামিন“এ” ক্যাপসুল খাওয়ানো হবে।

অ্যাডভোকেসি সভায় জেলায় কর্মরত অনলাই, প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকরা উপস্থিত ছিলেন।
ডেপুটি সিভিল সার্জন সুজিত চন্দ্র রায় বলেন, ভিটামিন ‘এ’ অপুষ্টিজনিত অন্ধত্ব রোগ থেকে শিশুদের রা করে, রোগ প্রতিরোধ মতা বৃদ্ধি করে, ডায়রিয়ার ব্যাপ্তিকাল ও জটিলতা কমায় এবং শিশু মৃত্যুর হার কমায়।

বাংলাদেশে ভিটামিন ‘এ’ এর অভাবজনিত সমস্যা প্রতিরোধে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের অধীন জাতীয় পুষ্টি সেবা, জনস্বাস্থ্য পুষ্টি প্রতিষ্ঠান বছরে দুইবার জাতীয় ভিটামিন ‘এ’ প্লাস ক্যাম্পেইন উদযাপন করে থাক।

এসময় ডেপুটি সিভিল সার্জন সাংবাদিকদের প্রতি ভিটামিন ‘এ’ পাস ক্যাপসুলের গুরুত্ব জনসাধারণের কাছে সংবাদপত্রের মাধ্যমে তোলে ধরার আহ্বান জানান।

x