Skip to content

জাতিসংঘের তথ্য মিলবে বাংলায়

জাতিসংঘের কার্যক্রম সম্পর্কিত যাবতীয় তথ্য এখন থেকে বাংলাতেও পাওয়া যাবে। জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের ৭৬তম অধিবেশনে এ প্রস্তাব পাশ হয়েছে। জাতিসংঘের স্বীকৃতি ছয়টি ভাষার পাশাপাশি বাংলা, উর্দু ও হিন্দিতেও সংস্থাটির তথ্য পাওয়া যাবে। শুক্রবার ভারতের পৃষ্ঠপোষকতায় বহুভাষা ব্যবহারের প্রস্তাবটি পাশ হয়।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম দ্য প্রিন্ট’র এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

প্রস্তাবটি পাশ হওয়ার ফলে জাতিসংঘের বৈশ্বিক যোগাযোগ শাখা নন-অফিসিয়াল ভাষা হিসেবে যোগাযোগের ক্ষেত্রে বাংলা, হিন্দু ও উর্দু ব্যবহার করবে। প্রস্তাবে পর্তুগিজ, কিসওয়াহিলি ও ফার্সি ভাষাও ব্যবহারের কথা বলা হয়েছে।

জাতিসংঘ তথ্য প্রচারের মাধ্যম হিসেবে স্বীকৃত ছয়টি ভাষার পাশাপাশি বাংলা, হিন্দি ও উর্দুকে গ্রহণ ও প্রতিষ্ঠানিক করা হবে বলে জানিয়েছেন জাতিসংঘে নিযুক্ত ভারতের স্থায়ী প্রতিনিধি টিএস তিরুমূর্তি।

তিনি বলেন, জাতিসংঘের মৌলিক মূল্যবোধ হিসেবে বহুভাষাবাদ স্বীকৃত। প্রস্তাবে এই প্রথম হিন্দি ভাষার উল্লেখ করা হয়েছে। সেই সঙ্গে বাংলা ও উর্দুর কথাও এই প্রথম বলা হলো। আমরা এই সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানাই।

অ্যান্ডেরা ও কলম্বিয়া এই রেজুলেশনটির কো-ফেসিলেটর ছিল।

তিরুমূর্তি আরও বলেন, ১৯৪৬ সালের ১ ফেব্রুয়ারি জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের প্রথম অধিবেশনের প্রস্তাবে বলা হয়েছিল, যতদিন না সারা বিশ্বের সব মানুষ জাতিসংঘের লক্ষ্য ও কর্মকাণ্ড সম্পর্কে জানতে পারছে, ততদিন তার উদ্দেশ্য পূর্ণ হবে না।

এ প্রস্তাবে ভারতসহ ৮০টি দেশ সাড়া দিয়েছে বলেও জানান তিনি।

সুনামগঞ্জমিরর/এসএ

x