Skip to content

সুনামগঞ্জের ডিসি অফিসে জন্ম নেওয়া শিশুর নাম রাখলেন প্রধানমন্ত্রী

সুনামগঞ্জে ডিসি অফিসের আশ্রয়কেন্দ্রে জন্ম নেওয়া শিশুর নাম রাখলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। শনিবার (১৮ জুন) সকাল ১০টার সময় জন্ম নেওয়া শিশুটির নাম মোবাইল ফোনে নিজে ‘প্লাবন’ রাখেন প্রধানমন্ত্রী।

সুনামগঞ্জ জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা যায়, পৌর শহরের মল্লিকপুর এলাকার বাসিন্দা জমিলা খাতুনের প্রসব বেদনা শুরু হলে রোববার সকালে স্বামী সুমন মিয়ার সঙ্গে সুনামগঞ্জ ২৫০ শয্যা হাসপাতালে রওনা হন। কিন্তু রাস্তা ডুবে যাওয়ায় তারা আটকা পড়েন। পরে তাদের সুনামগঞ্জে জেলা প্রশাসনের সহায়তায় ডিসি অফিসের আশ্রয়কেন্দ্রে নিয়ে আসা হয়। সকাল ১০টায় জমিলার কোল আলো করে জন্ম নেয় দ্বিতীয় পুত্রসন্তান।

পরে সুনামগঞ্জের জেলা প্রশাসক জাহাঙ্গীর হোসেন বিষয়টি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে জানালে তিনি ওই শিশুটির নাম প্লাবন রেখে দেন। একইসঙ্গে সুনামগঞ্জের জেলা প্রশাসক জাহাঙ্গীর হোসেনের মাধ্যমে শিশুকে উপহার সামগ্রী পাঠিয়ে দেন।

শিশুটির বাবা গাড়িচালক সুমন মিয়া গণমাধ্যমকে বলেন, বন্যা এসে সুনামগঞ্জের সব মানুষের কষ্ট হয়েছে। আমারও খুব কষ্ট হয়েছে। কিন্তু প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যখন আমার ছেলের নাম নিজে রেখে দিলেন এবং উপহার সামগ্রী পাঠালেন আমি নিজেকে ধন্য মনে করেছি।

নবজাতকের মা জমিলা খাতুন গণমাধ্যমকে বলেন, ভেবেছিলাম বন্যার পানির কারণে হাসপাতালে পৌঁছানোর আগেই আমি মারা যাবো। কিন্তু জেলা প্রশাসনের সহায়তায় আমাকে তাদের আশ্রয়কেন্দ্রে নিয়ে সুন্দরভাবে সন্তান প্রসব করিয়েছে। আমার ছেলের নাম প্রধানমন্ত্রী নিজে রেখেছেন, আমি সত্যি খুব আনন্দিত।

সুনামগঞ্জের জেলা প্রশাসক মো.জাহাঙ্গীর হোসেন গণমাধ্যমকে বলেন, মল্লিকপুর এলাকার ওই দম্পতির বাড়ি বন্যার পানিতে ডুবে গিয়েছিল। তার মধ্যে জমিলা খাতুনের প্রসব যন্ত্রণা উঠলে তারা সুনামগঞ্জ সদর হাসপাতালে যাওয়ার জন্য বের হয়। কিন্তু রাস্তা ডুবে যাওয়ায় সেখানে যেতে পারেনি। পরে আমি তাদের আমার কার্যালয়ের আশ্রয়কেন্দ্রে নিয়ে এলে একটি পুত্রসন্তানের জন্ম হয়। বিষয়টি আমি প্রধানমন্ত্রীকে জানালে তিনি শিশুটির নাম প্লাবন রেখে দেন এবং তার জন্য উপহার সামগ্রী পাঠান।

লিপসন আহমেদ/সুনামগঞ্জমিরর/এসএ

x