Skip to content

সিলেটে ১০ হাজার টাকা করে পাবে ৫ হাজার পরিবার

সিলেটে ভয়াবহ বন্যায় ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি করেছে। বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত ৫ হাজার পরিবারকে ১০ হাজার টাকা করে দেয়া হবে বলে জানিয়েছেন সিলেটের জেলা প্রশাসক। রোাববার (৩ জুলাই) সিলেট জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এ কথা জানান জেলা প্রশাসক মো. মজিবুর রহমান।

সিলেট জেলা প্রশাসক বলেন, সোমবার (৪ জুলাই) থেকে শুরু হবে এই টাকা বিতরণ। মূলত এবারের বন্যায় যেসব পরিবারের ঘরবাড়ি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে, তাদেরকেই এই টাকা প্রদান করা হবে।

বন্যা পরিস্থিতি, বন্যাত্তোর পুনর্বাসন ও ত্রাণ বিতরণ নিয়ে সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান তিনি। বন্যায় যাদের ঘরবাড়ি ভেঙেছে তাদেরকে দেয়া হবে ওই টাকা।

জেলা প্রশাসক জানান, প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ ও কল্যাণ তহবিল থেকে সিলেটে ৫ কোটি টাকা অনুদানের চেক পাওয়া গেছে। এই টাকা থেকেই প্রথম ধাপে ক্ষতিগ্রস্ত পাঁচ হাজার পরিবারকে সহায়তা করা হবে। পর্যায়ক্রমে অন্যদেরও সহায়তা প্রদান করা হবে।

গত ১৫ জুন থেকে সিলেটে বন্যা দেখা দেয়। ভয়াবহ বন্যায় সিলেট জেলায় প্রায় ৪১ হাজার ঘরবাড়ি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। প্রায় ৫ লাখ পরিবারের ৩০ লাখ মানুষ পানিবন্দি ছিলেন। বন্যা পরিস্থিতির কিছুটা উন্নতি হলেও এখনও বেশিরভাগ মানুষ পানিবন্দি অবস্থায় আছেন। সংবাদ সম্মেলনে জেলা প্রশাসক জানান, বর্তমানে ৩৫ হাজার ৬৮৫ জন আশ্রয়কেন্দ্রে রয়েছেন।

তিনি বলেন, সিলেট জেলায় ৬৫৪টি আশ্রয়কেন্দ্রে ২ লাখ ৩০ হাজার ৬৩২ জন আশ্রয় গ্রহণ করেন। অনেক এলাকায় বন্যা পরিস্থিতির উন্নতি হওয়ায় লোকজন আশ্রয়কেন্দ্র ছেড়ে নিজেদের বাসা-বাড়িতে ফিরে গেছেন। তবে এখনও ৪১৬টি আশ্রয়কেন্দ্রে ৩৫ হাজার ৬৮৫ জন লোক অবস্থান করছেন।

জেলা প্রশাসক আরও জানান, আশ্রয়কেন্দ্রগুলোতে ৩১ হাজার ৯৭টি গবাদিপশু নিয়ে এসেছিলেন বন্যাকবলিতরা। বর্তমানে ৫৩০টি গবাদিপশু আশ্রয়কেন্দ্রে রয়েছে।

সুনামগঞ্জমিরর/এসএ

x