ভুটানকে ৮ গোলে উড়িয়ে ফাইনালে বাংলাদেশ

নারী সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের সেমিফাইনালে ভুটানকে পাত্তাই দিল না বাংলাদেশ। ভুটানের জালে একে একে ৮ গোল জমা করেছে বাঘিণীরা। ভুটানকে ৮-০ গোলের বড় ব্যবধানে বিধ্বস্ত করেছে বাংলাদেশ।

এমন দাপুটে জয়ে ৬ বছর পর টুর্নামেন্টের ফাইনালে উঠল বাংলাদেশ। এর আগে ২০১৬ সালে সবশেষ ফাইনাল খেলেছিল লাল-সবুজের দলটি।

নেপালের রাজধানী কাঠমান্ডুতে সেমিফাইনালে আজ মুখোমুখি হয় দুই দল। প্রথমার্ধেই ভুটানের জালে ৪ গোল জমা করে বাংলাদেশ। দ্বিতীয়ার্ধে জমা হয় বাকি ৪ গোল।

বাংলাদেশের হয়ে হ্যাটট্রিক করেছেন অধিনায়ক সাবিনা খাতুন। একটি করে গোল করেন সিরাজ জাহান স্বপ্না, কৃষ্ণা রানি সরকার, তহুরা খাতুন, মাসুরা পারভীন ও রিতুপর্না চাকমা।

ম্যাচের দ্বিতীয় মিনিটে মাঝমাঠ থেকে আসা পাস ধরে নেপালের গোলরক্ষককে কাটিয়ে বল জালে জড়ান সিরাত জাহান স্বপ্না। ২৭ মিনিটে মারিয়া মান্দার পাস থেকে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন অধিনায়ক সাবিনা খাতুন।

৩০ মিনিটে কৃষ্ণা রানী সরকারের গোলে ব্যবধান ৩-০ করে বাংলাদেশ। এর পাঁচ মিনিট পরই গোল করে হালি পূরণ করেন বদলি খেলোয়াড় রিতুপর্ণা চাকমা।

দ্বিতীয়ার্ধে ব্যবধান কমাবে কি সাবিনাদের চাপে আরও কোণঠাসা হয়ে পড়ে ভুটান। ম্যাচের ৫৩ মিনিটে ডান কর্নার থেকে কৃষ্ণা রানির বাড়িয়ে দেওয়া বলে পেনাল্টি এরিয়া থেকে শট নিয়ে গোল করেন সাবিনা। এরা দুই মিনিট পরই ভুটানের জাল ৬ষ্ঠ গোলটি জমা করেন মাসুরা পারভীন।

৮১ মিনিটে একক নৈপুণ্যে ভুটানের রক্ষণভাগে ঢুকে পড়ে গোলের জন্য শট নেন শামসুন্নাহার। সেই শট প্রতিহত করলেও বল গ্রিপে রাখতে পারেননি ভুটান গোলরক্ষক। পরের প্রচেষ্টায় বল জালেও জড়িয়ে দেন তহুরা খাতুন। কিন্তু অফসাইডের কারণে গোলটি বাতিল হয়ে যায়।

অবশেষে ম্যাচের ৮৭ মিনিটে সপ্তম গোলের দেখা পায় বাংলাদেশ। ডান কর্নার থেকে মাসুরা পারভীন বাড়ানো উঁচু শট গ্লাভসবন্দি করতে ব্যর্থ হন ভুটান গোলরক্ষক। তহুরার গায়ে লেগে বল জড়ায় জালে। অতিরিক্ত মিনিটে নিজের হ্যাটট্রিক পূরণ করে ভুটানের জালে শেষ পেরেকটি ঠুকে দেন সাবিনা। রেফারির শেষ বাঁশিতে ৮-০ গোলের জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে বাংলাদেশ।

সুনামগঞ্জমিরর/এসএ

x